1. admin@dailysangbadpatro.com : admin :
মঙ্গলবার, ০৫ জুলাই ২০২২, ০৩:০৪ অপরাহ্ন

১৬টি দেশের হজযাত্রীদের জন্য দুঃসংবাদ

  • আপডেট সময় : রবিবার, ২২ মে, ২০২২
  • ২৯ বার পঠিত

ভারত-ইন্দোনেশিয়াসহ ১৬টি দেশে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে সৌদি আরব। দেশগুলো হলো, লেবানন, সিরিয়া, তুরস্ক, ইরান, আফগানিস্তান, ভারত, ইয়েমেন, সোমালিয়া, ইথিওপিয়া, গণতান্ত্রিক প্রজাতন্ত্র কঙ্গো, লিবিয়া, ইন্দোনেশিয়া, ভিয়েতনাম, আর্মেনিয়া, বেলারুশ ও ভেনেজুয়েলা।

কোভিড-১৯ এর প্রাদুর্ভাব পুনরায় বেড়ে যাওয়ায় এই নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে সৌদি আরব।

যদিও দেশগুলোতে ইতোমধ্যে হজে যাওয়ার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছেন মুসলমানরা। এমন সময় সৌদির এই নিষেধাজ্ঞায় কপালে চিন্তার ভাঁজ পড়েছে তাদের।

শনিবার (২১ মে) দ্য জেনারেল ডিরেক্টরেট অব পাসপোর্ট জানায়, কোভিড -১৯ আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে যাওয়ার কারণে ১৬টি দেশের নাগরিকদের ওপর নতুন এই ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞার ঘোষণা দিয়েছে সৌদি আরব।

গত কয়েক সপ্তাহ ধরে দৈনিক করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ক্রমাগত বৃদ্ধির পরে এই নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হলো।

বার্তা সংস্থা সৌদি গেজেটের প্রতিবেদনে বলা হয়, জেনারেল ডিরেক্টরেট অব পাসপোর্ট জানিয়েছে- যেসব সৌদিরা অ-আরব দেশগুলোতে ভ্রমণ করতে চান, তাদের পাসপোর্টের মেয়াদ অবশ্যই ছয় মাসের বেশি হতে হবে।

সংস্থাটি আরও জানায়, আরব দেশগুলোতে ভ্রমণের জন্য পাসপোর্টের মেয়াদ তিন মাসের বেশি হতে হবে।

সৌদির বাইরে ভ্রমণ করতে চাওয়া দেশটির নাগরিকদের জন্য কয়েকটি শর্ত আরোপ করেছে। সেগুলো হলো- তাদেরকে কোভিড-১৯ ভ্যাকসিনের তিনটি ডোজ নেওয়া থাকতে হবে। চিকিৎসার জন্য ভ্যাকসিন নিতে পারেননি যারা, তাদের জন্য অবশ্য ছাড় রয়েছে। ১৬ এবং ১২ বছরের কম বয়সীদের ক্ষেত্রে ভ্যাকসিনের দুটি ডোজ নেওয়া থাকতে হবে।

এদিকে, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) জানিয়েছে, ১১টি দেশে প্রায় ৮০ জন মাঙ্কিপক্সে আক্রান্ত হয়েছেন বলে নিশ্চিত হওয়া গেছে। এতে আরও বেশি আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে বলে সতর্ক করেছে সংস্থাটি।

সংবাদমাধ্যম আল অ্যারাবিয়া জানায়, সৌদি আরবে এখনও মাঙ্কিপক্সে আক্রান্ত কোনো ব্যক্তি শনাক্ত হননি বলে জনসাধারণকে নিশ্চিত করেছে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

স্বাস্থ্য উপমন্ত্রী ডা. আবদুল্লাহ আসিরি বলেন, সৌদির স্বাস্থ্য খাত ‘মাঙ্কিপক্সের’ সন্দেহজনক নমুনাগুলো পর্যবেক্ষণ ও শনাক্ত করতে এবং সংক্রমণের বিরুদ্ধে লড়াই করতে সক্ষম।

তিনি বলেন, এখন পর্যন্ত মানুষের মধ্যে মাঙ্কিপক্সের সংক্রমণ খুব সীমিত। তাই এটি থেকে যেকোনো প্রাদুর্ভাব ঘটার সম্ভাবনা কম। এমনকি যেসব দেশে মানুষের দেহে মানুষের দেহে মাঙ্কিপক্স শনাক্ত হয়েছে, তা খুব কম।

সূত্র : গালফ নিউজ, খালিজ টাইমস

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরও খবর
© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২২ © দৈনিক একুশের আলো ©
Theme Customized By Theme Park BD